Saturday, August 20, 2022
spot_img
Homeঅপরাধ দুর্ণীতির‍্যাব-৫ এর অভিযানে বিপুল পরিমাণ ভাং সহ গ্রেফতার-৭

র‍্যাব-৫ এর অভিযানে বিপুল পরিমাণ ভাং সহ গ্রেফতার-৭

র‍্যাব-৫ এর অভিযানে বিপুল পরিমাণ ভাং সহ গ্রেফতার-৭

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ র‍্যাব-৫ এর বিশেষ অভিযানে রাজশীর আসাম কলোনীর কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী মোঃ রুবেল সহ ০৭ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার ও বিপুল পরিমান মাদক উদ্ধার।

রবিবার (১০ এপ্রিল) ২০২২ ইং তারিখ ০২.১৫ ঘটিকায় রাজশাহী মহানগরীর চন্দ্রিমা থানাধীন আসাম কলোনীস্থ (মাজারের সামনে) এলাকায় অপারেশন পরিচালনা করে (১) ভাং গাছ-১৯ কেজি, (২) শুকনা ভাং-৮.৪ কেজি উদ্ধার করেন এবং আসামী ১। মোঃ রুবেল (৪২), পিতা-মোঃ আঃ রাজ্জাক, ২। মোঃ ইউনুস (৪০), পিতা-মৃত চান মিয়া, ৩। মোঃ বিপ্লব (৩৩), পিতা-মৃত আবুল কাশেম, ৪। মোঃ বাদল (৩৫), পিতা-মৃত বাদশা, সর্ব সাং- আসাম কলোনী (১৮নং ওয়ার্ড), ৫। মোঃ সাহেব আলী বাবু (৩৪), পিতা-মৃত গোলাম রসূল, সাং-নিউ কলোনী বউ বাজার, সর্ব থানা-চন্দ্রিমা, রাজশাহী মহানগর, ৬। মোঃ শহিদ হোসেন (৩০), পিতা-মোঃ আঃ কুদ্দুস, সাং-পুঠিয়া, থানা-পুঠিয়া, জেলা-রাজশাহী, ৭। মোঃ ওহেদ শেখ (৩৩), পিতা-মোঃ ওহাব শেখ, সাং-গোয়ালপাড়া, থানা-ভাংগা, জেলা-ফরিদপুরগনদের‘কে গ্রেফতার করেছে।

গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে র‍্যাব-৫, রাজশাহীর সিপিএসসি, মোল্লাপাড়া ক্যাম্পের একটি অপারেশন দল জানতে পারে যে, রাজশাহী মহানগরীর চন্দ্রিমা থানাধীন ১৮নং ওয়ার্ডের আসাম কলোনীস্থ (মাজারের সামনে) জনৈক মোঃ পঁচা (৭০) এর কয়লা/ছাই মিলের পিছনাংশে ধৃত ১নং আসামী মোঃ রুবেল (৪২) সহ টিনশেড রুমের ভিতর কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী অবৈধ মাদকদ্রব্য ভাং ও ভাং গাছ নিজেদের হেফাজতে রাখিয়া বিক্রয়ের জন্য প্রস্তুত করিতেছে। উক্ত সংবাদ পাওয়া মাত্রই রাত্রী ০২.১৫ ঘটিকায় ঘটনাস্থলে পৌছানোমাত্র র‍্যাবের উপস্থিতি টেরপেয়ে মাদক ব্যবসায়ীরা কৌশলে দৌড়ে পালানোর চেষ্টাকালে মোঃ রুবেল সহ ০৭ (সাত) জনকে আটক করা হয়।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত এলাকা বাসীরা জানায় যে, আটককৃত আসামীরা স্থানীয় একটি সংঘবদ্ধ মাদকচক্রের সদস্য। এরা দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে এমনকি রাজশাহী বিভাগের বিভিন্ন সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে মাদকদ্রব্য সংগ্রহ এবং খুচরা ভাবে স্থানীয় পর্যায়ে বিভিন্ন মাদকসেবীদের কাছে বিক্রি করে আসছিল। তারা এলাকায় বিভিন্ন আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সোর্স হিসেবে কাজ করে বলে অনুসন্ধানে বেরিয়ে। যার ফলে এলাকাবাসীরা কেউ এই সংঘবদ্ধচক্রের বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ করলে তাদেরকে বিভিন্ন ধরণের মাদক দিয়ে ধরিয়ে দিত বলে এলাকাবাসী জানায়।

সংঘবদ্ধ চক্রটির এ ধরণের মাদক কর্মকান্ডের কারণে তারা অতিষ্ঠ এবং আতঙ্কগ্রস্থ। র‍্যাব এর অভিযানে তাদের আটক করার কারণে এলাকাবাসীরা র‍্যাব এর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন এবং তাদের বিভিন্ন কু-কীর্তির কথা উপস্থিত র‍্যাব সদস্যদের কাছে বর্ণনা করেন। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, এ চক্রে আরও একাধিক সদস্য রয়েছে। এসব সদস্যদের আইনের আওতায় আনার জন্য র‍্যাব এর অভিযান অব্যাহত থাকবে।

উক্ত আসামীর বিরুদ্ধে রাজশাহী মহানগরীর চন্দ্রিমা থানায় ধারা- মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ২০১৮ সনের ৩৬ (১) সারণী ১৮ (খ)/ ৩৬ (১) সারণী ১৯(খ) ধারায় মামলা রুজুর কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।

সম্পর্কিত খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ খবর

জনপ্রিয় খবর

Recent Comments