Saturday, August 20, 2022
spot_img
Homeঅপরাধ দুর্ণীতিঝিনাইদহে বিএনপির দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া, পুলিশের লাঠিচার্জ

ঝিনাইদহে বিএনপির দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া, পুলিশের লাঠিচার্জ

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহে বিএনপির উপজেলা ও পৌর কমিটির সম্মেলনে পদ পাওয়াকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ায় পাঁচজন আহত হয়েছেন। শনিবার (১৬ এপ্রিল) বিকালে শহরের এইচ এস এস সড়কের জেলা বিএনপির কার্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ লাঠিচার্জ করলে আরও কয়েকজন আহত হন।

স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শনিবার জেলার শৈলকুপা উপজেলা ও পৌর বিএনপির সম্মেলন হওয়ার কথা ছিলো। সম্মেলনকে কেন্দ্র করে বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক জয়ন্ত কুমার কুন্ডু ও মানবাধিকারবিষয়ক সম্পাদক আসাদুজ্জামানের সমর্থকদের মাঝে সকাল থেকেই পদ পাওয়াকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা বিরাজ করছিল। সংঘর্ষের আশঙ্কায় উপজেলায় কমিটি গঠন না করে জেলা শহরে সম্মেলনের প্রস্তুতি নেয় বিএনপি। সেখানেও দুই পক্ষ অবস্থান নেয়। জেলা শহরে সংঘর্ষের আশঙ্কায় সকাল থেকে পুলিশ কঠোর অবস্থান নেয়। পরে দুপুরে জেলা বিএনপির কার্যালয়ে কমিটি গঠন নিয়ে আলোচনা চলাকালে জয়ন্ত কুমার কুন্ডুর সমর্থকরা কার্যালয়ের সামনে সম্মেলন অবৈধ বলে স্লোগান দিতে থাকেন। একপর্যায়ে আসাদুজ্জামানের সমর্থকরাও স্লোগান দিয়ে কার্যালয়ের সামনে গেলে দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া হয়। ছোড়া হয় ইট-পাটকেল। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠিচার্জ শুরু করে পুলিশ।

ঝিনাইদহ জেলা বিএনপির সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট এম এ মজিদ বলেন, উল্লেখযোগ্য তেমন ঘটনা ঘটেনি। বিএনপির পার্টি অফিসে কমিটি গঠন অনুষ্ঠানে একটি পক্ষ না এসে নিচে স্লোগান দিচ্ছিল। সেখান থেকে পুলিশ তাদের সরিয়ে দেয়।

ঝিনাইদহ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ সোহেল রানা জানান, বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। সংঘর্ষ এড়াতে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রাখা হয়েছে।

এ ঘটনায় কোনো অভিযোগ আসেনি। অভিযোগ পেলে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সম্পর্কিত খবর

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ খবর

জনপ্রিয় খবর

Recent Comments