Sunday, February 5, 2023

আমরা চাই না সীমান্তে কেউ মারা যাক: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী

মিনহাজুল হক বাপ্পী, লালমনিরহাট জেলা প্রতিনিধিঃ

বাংলাদেশ সরকারের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোঃ শাহরিয়ার আলম বলেন, আমরা চাই না সীমান্তে কেউ মারা যাক, আমরা সব সময়ই সীমান্ত হত্যা বন্ধের বিষয়টি প্রকাশ করি বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে বৈঠকে কয়েক দিন আগে আসন বিনিময় হয়েছে, সম্প্রতি দিল্লিতে ১টি বৈঠক হয়েছে। আলোচনায় ভারত সেখানে উভয় দেশই সীমান্ত হত্যা শূন্যে নামিয়ে আনতে চায়।আমি নিজেও একটি সীমান্ত আসনের সংসদ সদস্য। পদ্মার ওপারে ভারত আমার নির্বাচনী এলাকা। সিমান্তে হত্যাকাণ্ড বন্ধের প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। এছাড়া সীমান্ত এলাকায় সচেতনতা বাড়াতে হবে। ভিসা পাসপোর্ট ছাড়া কেউ ভ্রমণ করতে পারবে না বলে উভয় দেশেরই নিয়ম রয়েছে। সীমান্ত হত্যার সংখ্যা কমেছে। কিন্তু একটি মৃত্যু অনেক বেশি, তাই আমরা সীমান্তে কারো মৃত্যুও চাই না। আশা করি অদূর ভবিষ্যতে তা শূন্যের কোঠায় নেমে আসবে।

শনিবার (১৭ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টায় লালমনিরহাট চার্চ অব গড হাইস্কুলের প্লাটিনাম জুবিলী (৭৫ বছর পূর্তি) উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোঃ শাহরিয়ার আলম সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, পরিবারের একজন বাংলাদেশি এবং আরেকজন ভারতীয়। এ বছর আমি নিশ্চিতভাবে বলতে পারি যে ২০-২১ সালের তুলনায় এ বছর সীমান্ত হত্যা কম হয়েছে। কিন্তু আমরা বলবো আমরা একটা মৃত্যুও চাই না।

লালমনিরহাটের মোগলহাট স্থলবন্দরের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে সব ধরনের যোগাযোগ বন্ধ থাকলেও মোগলহাটের রেললাইন পাকিস্তান-পরবর্তী সময় থেকে চালু ছিল। ওখান থেকে কয়লা আসত কিন্তু আমরা উভয় সড়কের পুরনো যোগাযোগ পয়েন্টগুলো আবার খুলে দেব। কিন্তু বিনিয়োগ প্রয়োজন আছে এখানে আপনাকে যোগাযোগ সহ সাধারণ দিক দেখতে হবে। তারা আমাকে অনুরোধ করলে আমি এখানে চেম্বার নিয়ে বসবো।আর অবশ্যই পর্যাপ্ত ব্যবসায়িক চাহিদা থাকলে আমদানি-রপ্তানি করতে হবে। এটি চালু করা সম্ভব বলে মনে করছেন ব্যবসায়ী ও জনপ্রতিনিধিরা। স্থলবন্দর চালুর অগ্রাধিকার দিতে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে কথা বলব।

লালমনিরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এড. মতিয়ার রহমান, লালমনিরহাট পৌরসভার মেয়র রেজাউল করিম স্বপন চার্চ অব গড উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী (প্ল্যাটিনাম জুবিলী) অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানে সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান সুজন, মিশন স্কুলের প্রধান শিক্ষক সহিদার রহমানসহ সকল বর্তমান শিক্ষক, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, সাবেক শিক্ষক-শিক্ষিকাসহ প্রায় ৫ হাজার প্রাক্তন শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

রাজশাহী বিভাগ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ খবর

- Advertisment -

সর্বাধিক জনপ্রিয়