17.8 C
New York
শনিবার, মে ১৮, ২০২৪
spot_imgspot_imgspot_imgspot_img

আওয়ামী লীগের হাতে বাংলাদেশ নিরাপদ: মেয়র লিটন

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন- বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের হাতেই নিরাপদ। বিএনপির দুঃশাসন ভূলে গেলে চলবে না।

তিনি বলেন, দেশের মানুষ আর ভূল করবে না। খালেদা জিয়া অজশ্র মিল কারখানা বন্ধ করেছিল। হাজার হাজার মানুষ বেকার হয়েছিল। সার- বিদ্যুতের দাবিতে, ক্ষুধার জ্বালায় মানুষকে প্রাণ দিতে হয়েছে।

শুক্রবার বিকেলে নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলার রসুলপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ আয়োজিত উন্নয়ন ও শান্তি সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন লিটন।

তিনি আরো বলেন – বিএনপি আগুন সন্ত্রাস করে। লুটপাট করে। সেই অবস্থা থেকে দেশ ও দেশের মানুষকে রক্ষা করার উদ্যোগ নিয়েছেন শেখ হাসিনা। সেই থেকে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন নওগাঁ-১ আসনের সংসদ সদস্য খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার। বক্তব্যে মন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনা মন উজাড় করে দেশের মানুষকে ভালোবাসেন। তাহাজ্জুতের নামাজ পড়ে দোয়া করেন। তাঁর নেতৃত্বেই বাংলাদেশ এখন বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল।

বিএনপির সমালোচনা করে মন্ত্রী বলেন, বিএনপির আন্দোলনের শক্তি হারিয়ে ফেলেছে। তাদের সাথে দেশের মানুষের সম্পৃক্ততা নেই। বিএনপি নেতাদের ভোট চাওয়ার মুখ নেই। মির্জা ফখরুল এর সমালোচনা করে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, জনগণই সকল শক্তির মূল। বিদেশিদের কাছে ধর্না দিয়ে লাভ হবেনা। কোন ষড়যন্ত্রই আওয়ামী লীগের উন্নয়ন অগ্রযাত্রা বাধাগ্রস্ত করতে পারব না।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন- রসুলপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রতাপ চন্দ্র মন্ডল । অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন নিয়ামতপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফরিদ আহম্মেদ, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাদিরা বেগম, নিয়ামতপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ , সাধারণ সম্পাদক জাহিদ হাসান বিপ্লব।

সমাবেশে স্থানীয় আওয়ামী লীগ, অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীসহ সর্বস্তরের নারী পুরুষ অংশ নেন।

spot_imgspot_imgspot_imgspot_img
আজকের রাজশাহী
spot_imgspot_imgspot_imgspot_img

বিনোদন

- Advertisment -spot_img

বিশেষ প্রতিবেদন

error: Content is protected !!

Discover more from News Rajshahi 24

Subscribe now to keep reading and get access to the full archive.

Continue reading